অসভ্যদের রাজত্ব চলছে পশ্চিমবঙ্গে, এদের অবসান হবেই! MGNREGA সুপারভাইজারদের পাশে সুজন চক্রবর্তী।

নজরবন্দি ব্যুরোঃ রাজ্য সরকারের শ্রমিক বিরোধী নীতির প্রতিবাদে জেল ভরো আন্দোলন আন্দোলনের ডাক দিয়েছিল এমজিএনআরইজিএ সুপারভাইজার অ্যাসোসিয়েশন। এবার তাঁদের পাশে এসে দাঁড়ালেন সিপিআইএম বিধায়ক সুজন চক্রবর্তী। উল্লেখ্য গত ৭ই ফেব্রুয়ারি এমজিএনআরইজিএ সুপারভাইজার অ্যাসোসিয়েশনের পক্ষ থেকে মৌলালির রামলীলা পার্কে জমায়েত হয় ওখান থেকে মিছিল সহকারে ধর্মতলার রানী রাসমণি এভিনিউ সভা করে মুখ্যমন্ত্রীকে ডেপুটেশন দেওইয়ার কর্মসূচি ছিল।
কিন্তু কলকাতা পুলিশ এই সভার অনুমতি দেয়নি, পুলিশের বক্তব্য মুখ্যমন্ত্রী ডেপুটেশন গ্রহণ করতে পারবেন না। তাই প্রতিবারের মত এবারও মুখ্যমন্ত্রীর সচিব কে স্মারকলিপি জমা দিতে হবে। এমজিএনআরইজিএ সুপারভাইজার অ্যাসোসিয়েশনের পক্ষ থেকে বলা হয়, একাধিকবার মুখ্যমন্ত্রীর সচিবালয়ে স্মারকলিপি দিয়েও কোনো কাজ না হওয়ায় এবার আইন অমান্য আন্দোলনের পথ বেছে নেওয়া হয়েছে। অভিযোগ, গত ৭ তারিখ সকালেই রাজ্যের বিভিন্ন জেলা থেকে প্রায় ১০ হাজার কর্মী মিছিল করে রাণী রাসমনি এভিনিউ এর দিকে এগোয় কিন্তু পুলিশ রামলীলা পার্ক সংলগ্ন সিআইডি রোড এর দুই দিকে ব্যারিকেড তৈরি করে দেয় এবং ওখান থেকে ২৫২ জন কর্মীকে গ্রেফতার করে। বাকিদের নাম লিখে নিয়ে এবং ওখান থেকেই চলে যেতে বাধ্য করে। প্রসঙ্গত, ১০০ দিনের কাজের সুপারভাইজার ১২ মাস কাজ করেন কিন্তু মজুরি পান মাত্র ১০০ দিনের। বিষয়টি নিয়ে রাজ্য সরকারের পঞ্চায়েত দপ্তরের মন্ত্রী সুব্রত মুখার্জি নগর উন্নয়ন দপ্তরের মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম সহ মুখ্যমন্ত্রীর দফতরে একাধিকবার স্মারকলিপি দেওয়া হয়েছে। কিন্তু কাজের কাজ কিছুই হয়নি। সংগঠনের পক্ষ থেকে অভিযোগ করা হয়েছে পঞ্চায়েতে ক্ষমতা পরিবর্তনের পরে সুপারভাইজারদের কাজ থেকে বিভিন্ন অঞ্চলে কর্মীদের বাদ দিয়ে শাসক দলের অনুগত কর্মীদের সেই জায়গায় কাজ দেওয়া হচ্ছে! অথচ সরকারি নিয়ম আছে যারা এই কাজটি করছেন তারা ৬০ বছর বয়স পর্যন্ত কাজটি করতে পারবেন। মুখ্যমন্ত্রী নিজেও একাধিক প্রশাসনিক মিটিং এ বলেছেন সুপারভাইজারদের কাজ থেকে বাদ দেওয়া যাবে না। কিন্তু বাস্তব চিত্র সম্পূর্ন ভিন্ন।
এমজিএনআরইজিএ সুপারভাইজার অ্যাসোসিয়েশনের পাশে দাঁড়িয়েছেন সিপিআইএম বিধায়ক সুজন চক্রবর্তী। তিনি বলেন, "পুলিশ রাজ চলছে কেউ কোন কথা বলতে পারবে না! ১০০ দিনের কাজের সুপারভাইজাররা ১২ মাস কাজ করেন কিন্তু মজুরি পান মাত্র ১০০ দিনের। লেবার পায় ১৯০ টাকা সুপারভাইজারও পায় ১৯০ টাকা। তৃণমূল সরকার ক্ষমতায় আসার পর পছন্দ মত লোক নিচ্ছে, বাদ দিচ্ছে!" আর কি বললেন সুজন চক্রবর্তী দেখুন।
ভিডিও টি দেখতে এখানে ক্লিক করুন।

Bengali Movie Air Hostess

DESCRIPTION OF IMAGE
Loading...

No comments

Theme images by caracterdesign. Powered by Blogger.