চিটফান্ড তদন্তে সরাসরি যুক্ত ছিলেন না? "মিথ্যা বলছেন রাজীব কুমার" পাল্টা সিবিআই।

নজরবন্দি ব্যুরোঃ সুপ্রিম কোর্টে হলফনামা দিলেন কলকাতার সদ্য প্রাক্তন পুলিশ কমিশনার রাজীব কুমার। হলফনামায় তিনি দাবী করেন রাজ্য সরকার গঠিত চিটফান্ড তদন্তের জন্যে বিশেষ টিম অর্থাৎ সিট এর তদন্ত তার তত্ত্বাবধানে হয় নি। তিনি কেবলমাত্র তদন্তকারী দল আর প্রশাসনের সাথে সমন্বয়ের কাজে যুক্ত ছিলেন।
তদন্তের সাথে সরাসরি যুক্ত ছিলেন অন্যান্য অফিসাররা, তিনি নন। তাছাড়া সিবিআইকে তিনি চারটি সিডি দিয়েছেন যেখানে সিবিআইএর চাওয়া পাঁচটির মধ্যে চারটি ফোন নম্বরের কল ডিটেলস রেকর্ড রয়েছে শুধু তাই নয় আটক করা ৩৬৭টি সামগ্রীর লিস্টও দেওয়া হয়েছে সিবিআইকে।  তাঁর বাড়িতে সিবিআই হানা সম্পর্কে তাঁর অভিযোগ ২০-২৫ জন সিবিআই আধিকারিক সিক্রেট অপারেশনের জন্যে তাঁর বাড়িতে হাজির হন ৩ ফেব্রুয়ারি, তখন তিনি লালবাজারে ছিলেন। তা জেনেও সিবিআই অফিসাররা তাঁর বাড়িতে ঢুকতে চায়। তাঁদের কাছে কোন নথিপত্র ছিলনা তাই তাঁদের বলা হয় সেক্সপিয়ার সরনি থানায় যেতে। তখন তারা নিজেদের গাড়িতে চেপেই সেক্সপিয়ার সরনি থানায় পৌঁছান!
সুপ্রিককোর্টে রাজীবের এই হলফনামার প্রেক্ষিতে পাল্টা অভিযোগ করেছে সিবিআই, অ্যাটর্নি জেনারেল কে কে বেণুগোপাল বলেন, ‘‘রাজীব কুমার মিথ্যে বলছেন।’’  সিপি-র বাড়িতে সিবিআই হানা নিয়ে আগামী শুনানির দিন সুপ্রিম কোর্টে পুলিশি হেনস্থার প্রমান স্বরূপ ভিডিও ফুটেজ জমা করবে সিবিআই। পাশাপাশি রাজীব কুমারের জমা করা হলফনামার পাল্টা হলফনামা দেবে সিবিআই। আগামী শুনানি হবে ২৭শে ফেব্রুয়ারি।
অন্যদিকে, বিচারপতি এল নাগেশ্বর রাও নিজেকে শুনানি থেকে সরিয়ে নিয়েছেন। কারণ একদা আইনজীবী হিসেবে চলতি বিষয়েই তিনি রাজ্যের হয়ে সওয়াল করেছিলেন।তাই বিচারপতি হিসেবে একই বিষয়ে মামলায় অংশগ্রহণ করা থেকে নিজেকে দূরে সরিয়ে নিয়েছেন তিনি।  আজ মুখ্যসচিব, রাজ্য পুলিশের ডিজি ও রাজীব কুমারদের বিরুদ্ধে সিবিআইয়ের করা আদালত অবমাননা মামলার শুনানি হয়নি।
Bengali Movie Air Hostess

DESCRIPTION OF IMAGE
Loading...

No comments

Theme images by caracterdesign. Powered by Blogger.