Header Ads

নয়া আইন আনতে পারে কেন্দ্র, আর ২১ নয়,ছেলেরা ১৮ বছর বয়সেই বিয়ে করতে পারবে ।

নজরবন্দি ব্যুরোঃ সাধারণত ছেলে ও মেয়েদের মধ্যে কমপক্ষে ৩ থেকে ৫ বছর বা কখনও আরও বেশি পার্থক্য রাখাই ছিল একপ্রকার অলিখিত নিয়ম। ২০১৯ সালে দাঁড়িয়ে সেই রীতি হারিয়েছে। পুরুষ বা নারী নির্বিশেষে সকলেই চাইছেন, নিজের সমবয়সী সঙ্গির সঙ্গেই জীবন কাটাতে। কেন্দ্রীয় সরকারের নারী ও শিশু কল্যাণ মন্ত্রকেরও চোখ এড়িয়ে যায়নি বিষয়টা। সেই কারণে মেয়েদের পাশাপাশি ছেলেদেরও বিয়ে করার ন্যূনতম বয়সও ১৮-তে নামিয়ে আনার কথা ভাবছে কেন্দ্রীয় সরকার। প্রস্তাবিত এই পরিবর্তন নিয়ে গত ১৮ অক্টোবর নারী ও শিশুকল্যাণ মন্ত্রকের মন্ত্রিসভার এক বৈঠকে আলোচনা হয়েছে বলে খবর।
এই বৈঠকে আইন, স্বরাষ্ট্র, স্বাস্থ্য, সংখ্যালঘু ও আদিবাসী মন্ত্রকের মন্ত্রীরাও উপস্থিত ছিলেন। আরও একটি প্রস্তাব নিয়ে এই বৈঠকে আলোচনা হয়েছে, তা হল চিরতরে বাল্যবিবাহ বন্ধ এবং বাতিলের খাতায় ফেলা। বর্তমানে বাল্যবিবাহ নিয়ে যা আইন রয়েছে তা হল, ছোট বয়সে এই বিবাহ অকার্যকর। তবে বৈধ বয়স হলে এই বিবাহ কার্যকর হবে। নতুন আইনে এই বিয়ে পুরোপুরি অবৈধ বলে ধরা হবে। ভবিষ্যতে ১৮ বছর বয়সেই আইনত বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হতে পারবেন একজন পুরুষ। এখনও এই পরিকল্পনা চিন্তা-ভাবনার স্তরে রয়েছে। তবে সবকিছু ঠিক থাকল এমনটা হলে অবাক হওয়ার কিছুই থাকবে না।
Loading...

No comments

Theme images by enjoynz. Powered by Blogger.