Header Ads

অবসরপ্রাপ্ত সরকারি কর্মীদের এই কাজটি করতেই হবে! জেনেনিন কি কাজ?

নজরবন্দি ব্যুরো: রাজ্য জুড়ে চলছে অবসরপ্রাপ্ত সরকারি কর্মীদের লাইফ সার্টিফিকেট জমা দেওয়ার পালা। প্রতি বছর নিয়ম করে গোটা নভেম্বর মাস জুড়ে সরকারি কর্মীদের লাইফ সার্টিফিকেট জমা দেওয়ার প্রক্রিয়া চলে থাকে। একমাত্র অবসরপ্রাপ্ত সরকারি কর্মীরাই এই লাইফ সার্টিফিকেট জমা দিয়ে থাকেন। নভেম্বরের ১ তারিখ থেকে শুরু হয় এই প্রক্রিয়া, চলে ৩০ নভেম্বর পর্যন্ত।
সরকারি দফতর থেকে শুরু করে প্রাথমিক, উচ্চ প্রাথমিক এবং শিক্ষাঙ্গনের সমস্ত স্তরে উচ্চ মাধ্যমিক, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক অশিক্ষক অবসরপ্রাপ্ত সরকারি কর্মীরা নভেম্বর মাসে লাইফ সার্টিফিকেট জমা দিয়ে থাকেন। অবসরপ্রাপ্ত সরকারি কর্মীরা যারা পেনশনভোগী তাদের প্রতি বছর নিজেদের সংশ্লিষ্ট দফতরে 'জীবিত থাকার প্রমাণ' হিসেবে লাইফ সার্টিফিকেট জমা দিতেই হবে। লাইফ সার্টিফিকেট জমা না দিলে পেনশন আটকে যাবে। ছুটতে হবে সংশ্লিষ্ট দফতরে সশরীরে প্রয়োজনীয় সরকারি নথি নিয়ে। লাইফ সার্টিফিকেটের সঙ্গে অবসরপ্রাপ্ত সরকারি কর্মীকে অবশ্যই 'পিপিও' নম্বর দিতে হবে। কারণ পিপিও নম্বর ছাড়া কোন অবসরপ্রাপ্ত সরকারি কর্মী সরকারি পেনশনভোগের সুবিধা পেতে পারেনা।
অবসরপ্রাপ্ত সরকারি কর্মীরা লাইফ সার্টিফিকেট সংশ্লিষ্ট দফতর থেকে কিংবা যে ব্যাঙ্কের শাখায় পেনশন সংক্রান্ত ব্যাঙ্ক অয়্যাকাউন্ট আছে সেখান থেকে পেতে পারেন। জমা দিতে হয় ওই ব্যাঙ্কে যে ব্যাঙ্কে পেনশনভোগীর অয়্যাকাউন্ট আছে অথবা সংশ্লিষ্ট দফতরে, যে দফতরে কর্মরত থেকে অবসর নিয়েছেন। লাইফ সার্টিফিকেটে অবশ্যই একজন গেজেটেড র‍্যাঙ্কের আধিকারিকের স্বাক্ষর অতি জরুরি। এই স্বাক্ষর না থাকলে সংশ্লিষ্ট অবসরপ্রাপ্ত সরকারি কর্মী সরকারি পেনশনভোগীর সুবিধা পাওয়া থেকে বঞ্চিত হতেই পারেন। তাই প্রতি বছর নভেম্বরে রাজ্যের সমস্ত রাষ্ট্রয়াত্ত ব্যাঙ্ক এবং পোস্ট অফিসে পেনশনভোগী অবসরপ্রাপ্ত সরকারি কর্মীদের লাইফ সার্টিফিকেট তোলা আর জমা দেওয়ার ভিড় দেখতে পাওয়া যায়।
Loading...

No comments

Theme images by enjoynz. Powered by Blogger.