Header Ads

মিথিলার বাড়িতে ভরপেট গো মাংস খেয়ে সৃজিতের হিন্দুত্ববাদীদের মোক্ষম জবাব!

নজরবন্দি ব্যুরো : সৃজিত-মিথিলা বিয়ের পর থেকে হানিমুন সেরে সোজা গিয়েছেন বাংলাদেশে দ্বিরাগমনে। মেয়ে জামাই এসেছে বলে কথা মেনু তো জমজমাট হবেই। সৃজিতের শ্বশুরবাড়ির প্রথম অফিশিয়াল ভুরিভোজে সৃজিতের জন্য পাত সাজলো ঝিরিঝিরি আলু ভাজা, লইট্যা শুটকি, ডাল, কড়াইশুঁটি দিয়ে পাবদা মাছ, মুরগির ঝোল আর বাঁধাকপি দিয়ে গরুর গোস্তে। জামাই অর্থাৎ সৃজিত কব্জি ডুবিয়ে খেলেন। গোরক্ষকের দল টিপ্পনি কাটতে শুরু করলেন মেনু দেখে। হিন্দুত্বের ধ্বজাধারী যুবককে মোক্ষম জবাব দিলেন সৃজিত। উদ্দিষ্ট ব্যক্তি কে অশিক্ষিত তো বললেনই তার সাথে মজার শাস্তিও দিলেন। বললেন, ধৃগকো, গৃহ্যসূত্র, মনুস্মৃতি থেকে খাওয়া-দাওয়া সংক্রান্ত কিছু শ্লোক দেবেন, সেই শ্লোকগুলি প্রতিদিন সকালে ঘুম থেকে উঠে ছাদে কান ধরে দাঁড়িয়ে আওড়াতে বলেছেন।
সেই সঙ্গে মনে করে দিয়েছেন তাঁর বিখ্যাত সংলাপের কথা। কিছু মানুষ তাকে সমর্থন ও করেছেন। আবার অন্যদিকে এক সনাতনী হিন্দু ধর্মের রক্ষাকর্তা স্মৃতিকে বলে বসলেন, ' দাদা আমি অপেক্ষায় আছি কবে আপনি শ্বশুরবাড়ি থেকে শূকরের মাংসের একটি ডিস পাবেন। আশা করি আপনার শাশুড়ি শূকরের মাংস রান্না করতেও খুব ভালোবাসেন।' তাকেও এর পরিপ্রেক্ষিতে মোক্ষম জবাব দেন পরিচালক। তিনি লেখেন, 'না উনি শূকরের মাংস খান ও না, রান্না করেন না, ঠিক যেমন আমার মা গো মাংস খান না কিংবা রান্না করেন না। কিন্তু আমি সব খাই। এমনকি আপনার কেঁচোদেরও। সস দিয়ে আপনাকে খেলে আহা! স্বর্গীয় অনুভূতি হবে। ' বাংলাদেশের জামাই এর এত সুন্দর জবাবে খুশি নেট দুনিয়া। দেশের এমন অস্থির সময়ে সৃজিতের এই মোক্ষম জবাবের জন্য তাকে সাধুবাদ জানিয়েছেন সকলে।
Loading...

No comments

Theme images by lishenjun. Powered by Blogger.