Header Ads

২৪ ঘন্টায় সংক্রমনের নিরিখে বিশ্বে তৃতীয়, মৃত্যুতে চতুর্থ স্থানে ভারত! #Exclusive

নজরবন্দি ব্যুরোঃ সমগ্র বিশ্ব করোনা বিরুদ্ধে লড়াই করছে; মানবজাতি একজোট তবুও রোখা যাচ্ছে না সংক্রমণ। সারা বিশ্বে এই মুহুর্তে সংক্রামিতের সংখ্যা ৪৭ লক্ষ ৭১ হাজার ৬৯৭। এই বিপুল সংক্রামিতের মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৩ লক্ষ ১৪ হাজার ৬৮৪ জনের। সুস্থ হয়ে উঠেছেন ১৮ লক্ষ ৪৩ হাজার ৮৮২ জন। বাকিরা এই মুহুর্তে চিকিৎসাধীন। বিশ্বের মধ্যে সবচেয়ে সংক্রামিত দেশ আমেরিকা, আমেরিকায় সংক্রমণ ছড়িয়েছে ১৫ লক্ষ ১৫ হাজার ৩১১ জনের মধ্যে। ইতিমধ্যেই মৃত্যু হয়েছে ৯০ হাজার ৩৩২ জন মানুষের।
আমেরিকার পর সংক্রমনের নিরিখে যথাক্রমে রয়েছে রাশিয়া, স্পেন, ব্রিটেন, ব্রাজিল, ইতালি, ফ্রান্স, জার্মানি, তুর্কী, ইরান আর ঠিক তাঁর পরেই ১১ নম্বর স্থানে রয়েছে ভারত। এই মুহুর্তে দেশে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৮৫ হাজার ৬৬৪ জন যার মধ্যে ইতিমধ্যেই সুস্থ হয়েছেন ৩৬ হাজার ৭৯৫ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ৩ হাজার ২৫ জনের। ভারতে গত ২৪ ঘণ্টায় বিপুল পরিমানে সংক্রমণ বৃদ্ধি পেয়েছে যা বিশ্বের মধ্যে তৃতীয় সর্বোচ্চ! এই হার বজায় থাকলে আগামি ১ মাসের মধ্যে সংক্রমনের নিরিখে প্রথম ৫ এ উঠে আসবে ভারত।
গত ২৪ ঘণ্টায় সবথেকে বেশি সংক্রমণ ধরা পড়েছে রাশিয়াতে, সেদেশে করোনা ভাইরাসে সংক্রামিত হয়েছেন ৯ হাজার ৭০৯ জন। দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে আমেরিকা, আমেরিকায় গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে সংক্রমণ ধরা পড়েছে ৭ হাজার ৫৩৮ জনের। এবং তৃতীয় স্থানে রয়েছে ভারত, ভারতে গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৫ হাজার ১৫ জন।
পাশাপাশি ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু সংখ্যার নিরিখে ভারত রয়েছে চতুর্থ স্থানে, গত ২৪ ঘণ্টায় সবথেকে বেশি মৃত্যু হয়েছে মেক্সিকোয়।  মেক্সিকোতে গত ২৪ ঘন্টায় মৃত্যু হয়েছে ২৭৮ জনের। তারপর দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে আমেরিকা। সেখানে গত ২৪ ঘন্টায় মৃত্যু হয়েছে ২১৯ জনের। তারপরেই রয়েছে ব্রিটেন, ব্রিটেনে গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে ১৭০ জনের এবং চতুর্থ স্থানে থাকা ভারতের মৃত্যু সংখ্যা গত ২৪ ঘণ্টায় ১৫২!
উল্লেখ্য ৩৩ কোটি জনসংখ্যার আমেরিকায় এখন পর্যন্ত টেস্ট হয়েছে ১ কোটি ২০ লক্ষ ৫৯ হাজার ২২৬ জনের যা প্রতি ১০ লক্ষ জনসংখ্যা পিছু ৩৬ হাজার ৪৫৯। রাশিয়ার জনসংখ্যা ১৪ কোটি ৫৯ লক্ষ, এখন পর্যন্ত সেদেশে টেস্ট হয়েছে ৬৯ লক্ষ ১৬ হাজার ৮৮ জনের যা প্রতি ১০ লক্ষ জনগ্ন পিছু ৪৭ হাজার ৩৯৪। অন্যদিকে ভারতের জনসংখ্যা ১৩৭ কোটি, এখন পর্যন্ত দেশে টেস্ট হয়েছে ২২ লক্ষ ২৭ হাজার ৬৪২ টি যা প্রতি ১০ লক্ষ জনগন পিছু ১ হাজার ৬১৬।
Loading...

কোন মন্তব্য নেই

lishenjun থেকে নেওয়া থিমের ছবিগুলি. Blogger দ্বারা পরিচালিত.