Header Ads

আমফান মোকাবিলায় তৈরি সিপিআই(এম), তৈরি কান্তি গঙ্গোপাধ্যায়

নজরবন্দি ব্যুরো: বার বার রায়দিঘি এলাকায় নির্বাচনী যুদ্ধে পরাজিত হয়েছেন প্রবীণ সিপিআই(এম) নেতা এবং প্রাক্তন মন্ত্রী কান্তি গঙ্গোপাধ্যায়। কিন্তু তার পরেও যখনই রায়দিঘির মানুষ বিপদে পড়েছেন তিনি সবার আগে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন। তাই আয়লা, ফণী, বুলবুল- যে যখনই রায়দিঘির উপর তাণ্ডব করেছে, তখনই তাদের পাশে দাঁড়িয়েছেন এই বামপন্থি নেতা। সেই কান্তি গঙ্গোপাধ্যায় এবারেও প্রস্তুত আমফান মোকাবিলায়। রাজ্যের দিকে ধেয়ে আসছে ভয়ঙ্কর ঘূর্ণিঝড় আমফান।

মৌসম ভবন সূত্রে খবর, মঙ্গলবার বিকেল থেকেই প্রবল ঝড়-বৃষ্টি শুরু হতে পারে বাংলায়। বঙ্গোপসাগর-পৃষ্টে তৈরি এই ঘূর্ণিঝড়ের বেগ রয়েছে সর্বোচ্চ ২২০ থেকে ২৩০ কিলোমিটার প্রতি ঘণ্টা। যদিও স্থলভাগে এসে সেই বেগ কমে ১৬৫-১৭৫ থেকে ১৯৫ কিলোমিটার প্রতি ঘণ্টা হবে এমনটাই আবহাওয়া দফতর সূত্রে খবর। সুপার সাইক্লোন আমফান পশ্চিম মধ্য ও পূর্ব মধ্য বঙ্গোপসাগরে অবস্থান করছে।

আবহাওয়া-বিদদের কথায়, আয়লার থেকেও এই ঘূর্ণিঝড় আরও ভয়ঙ্কর। উপকূলবর্তী এলাকায় বিশেষ করে দক্ষিণ ২৪ পরগনায় ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতির সম্ভাবনা থাকছে। বঙ্গোপসাগরের সুপার সাইক্লোনের খবর পেয়েই আগাম প্রস্তুতি সেরে ফেলেছেন কান্তি গঙ্গোপাধ্যায় অনেকেই আদর করে বলেন কান্তি বুড়ো।

তিনি জানিয়েছেন, "যত বড়ই দুর্যোগ আসুক না কেন আমরা তৈরি আছি। রায়দিঘিতে আমার স্ত্রীর একটা স্কুল আছে। সেখানে সবার থাকায় ব্যবস্থা করেছি। দু-হাজার ত্রিপল, একটা নৌকা, ১০০ কুইন্টাল চাল, তিন লক্ষ টাকার ওষুধের বন্দোবস্ত ইতিমধ্যে করেছি আমরা। এখানে যাঁদের মাটির ঘর আছে, তাদের সবাইকে সন্ধ্যা নামার আগে ওই স্কুলে চলে যেতে বলা হয়েছে।" এর পরে তিনি আরও বলেন, সরকারের সহযোগিতার চেয়ে আমরা মুখ্যমন্ত্রীকে চিঠি দেব।
Loading...

কোন মন্তব্য নেই

lishenjun থেকে নেওয়া থিমের ছবিগুলি. Blogger দ্বারা পরিচালিত.