Header Ads

শিক্ষিত বেকারদের পাশে বিদ্যালয় পরিদর্শক! টিউশন বন্ধের নির্দেশিকা স্কুলে।

নজরবন্দি ব্যুরোঃ রাজ্যে শিক্ষক সংক্রান্ত সমস্যা উত্তরোত্তর বৃদ্ধি পাচ্ছে। বেকার সমস্যা এক চরম আকার ধারণ করেছে। এই পরিস্থিতিতে শিক্ষিত বেকারদের পাশে দাঁড়িয়ে দৃষ্টান্ত মূলক পদক্ষেপ গ্রহণ করা হল জেলা বিদ্যালয় পরিদর্শকের তরফে।
সরকারি কিংবা বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে কর্মরত শিক্ষক এবং অশিক্ষক কর্মীদের প্রাইভেট টিউশন বন্ধ করার নির্দেশিকা জারি করলেন ইসলামপুর জেলা বিদ্যালয় পরিদর্শক রবীন্দ্রনাথ মন্ডল। শিক্ষকদের প্রাইভেট টিউশন বন্ধের দাবিতে ইসলামপুর ওয়েস্ট বেঙ্গল প্রাইভেট টিউটর ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশনের তরফে একাধিকবার স্মারিকলিপি দেওয়া হয়েছে। অবশেষে নড়েচড়ে বসলেন জেলা বিদ্যালয় পরিদর্শক।

দীর্ঘদিন ধরে শিক্ষকদের প্রাইভেট টিউশন বন্ধ করার দাবিতে আন্দোলন চালিয়ে আসছে ওই সংগঠন। সংগঠনের সম্পাদক বিশ্বরঞ্জন ব্যানার্জির বক্তব্য অনুযায়ী, বহু শিক্ষক স্কুলে সঠিকভাবে দায়িত্ব সহকারে না পড়িয়ে বাইরে প্রাইভেট টিউশন করাচ্ছেন। এদিকে স্কুলের শিক্ষকদের হাতেই প্রজেক্টের নম্বর থাকার কারণে অভিভাবকরাও তাদের কাছে পড়ুয়াদের পাঠাতে বাধ্য হচ্ছেন। মোটা টাকা দুদিক থেকে কামাচ্ছেন শিক্ষকরা। একদিকে স্কুলের বেতন, অন্যদিকে টিউশনের টাকা। আর বঞ্চিত হচ্ছেন এলাকার শিক্ষিত বেকার যুবক যুবতীরা। তাদের স্বার্থেই এই আন্দোলন।

আন্দোলনের চাপে অবশেষে প্রাইভেট টিউশন বন্ধে উদ্যোগ নিয়েছেন বিদ্যালয় পরিদর্শক। গত ২৭ জুন সংশ্লিষ্ট বিষয়ে নিষেধাজ্ঞা জারি করে মাধ্যমিক, উচ্চ মাধ্যমিক, আপার প্রাইমারি, সহ অন্যান্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গুলিতে নির্দেশিকা পাঠানো হয়েছে। এই বিষয়টির ওপর নজর রাখতে বলা হয়েছে স্কুলের প্রধান শিক্ষকদের। নিয়ম ভঙ্গ করা হলে তাদের কারণ দর্শানোর নোটিশ পাঠানো হবে। তাতে সন্তোষজনক উত্তর না পাওয়া গেলে কঠোর ব্যবস্থা গৃহীত বলে বলেও জানানো হয়েছে।


Theme images by caracterdesign. Powered by Blogger.