ডিএলএড সার্টিফিকেটে মারাত্মক ভুল! আবার গেরোয় রাজ্যের ১৮ হাজার কর্মরত শিক্ষক। #Exclusive

নজরবন্দি ব্যুরোঃ রাজ্যে শিক্ষক পদে চাকরি প্রার্থী এবং কর্মরত শিক্ষকরা একধিক সমস্যায় জর্জরিত। কখনো বেতন সংক্রান্ত সমস্যা, আবার কখনো চাকরি বাচানোর দায়, বারবার ভবিষ্যৎ অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে এরাজ্যের শিক্ষকদের। এবার ডিএলএড এর সার্টিফিকেট নিয়ে নতুন সমস্যায় পড়লেন ইন-সার্ভিস প্রাইমারি টিচাররা।

২০১৪-২০১৬ ডিএলএড ব্যাচের ইনসার্ভিস প্রাথমিক শিক্ষকদের সার্টিফিকেট দেওয়া হয়েছে। ডিপিএসসি অফিস থেকে প্রদান করা এই সার্টিফিকেটে এই মারাত্মক ভুল রয়েছে বলে দাবি একাধিক ইন-সার্ভিস শিক্ষকদের।আরও পড়ুনঃ ছাত্র হত্যা-আহত শিক্ষক । ‘রাষ্ট্রীয় সন্ত্রাস’! কালা দিবস, ডেপুটেশন... তারা জানিয়েছেন, তাদের মার্কশিটের এনসিটিই-র অর্ডার নম্বর এর সাথে সার্টিফিকেটের অর্ডার নম্বর এর মিল নেই। সার্টিফিকেটে এনসিটিই অর্ডার নম্বর এ একটি 'F' নেই। এই ভুলের জন্য ভবিষ্যতে সমস্যায় পড়তে পারেন প্রায় ১৮ হাজার শিক্ষক।
এবিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষন করতে তথা অভিযোগ জানাতে আগামি সোমবার ডিআই এবং এসআই অফিসে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন ওই শিক্ষকরা। সার্টিফিকেটে এরকম একটা মারাত্মক ভুলের দায় কে নেবে? রাজ্যের প্রাথমিক শিক্ষা সংসদের এই গাফিলতির দায় কি তারা নেবে? প্রশ্ন তুলেছেন কর্মরত প্রাথমিক শিক্ষকরা।
DESCRIPTION OF IMAGE
Loading...

No comments

Theme images by caracterdesign. Powered by Blogger.