"জেএনইউ-র এই জয় শুধু বামপন্থীদের নয় সমগ্র ছাত্র সমাজের" বললেন নবনির্বাচিত সভাপতি।

নজরবন্দি ব্যুরোঃ লেফট অ্যালায়েন্সের সামনে মাথা তুলে দাঁড়াতে পারলো না এবিভিপি এবং অন্যান্য দল। প্রেসিডেন্ট, ভাইস প্রেসিডেন্ট থেকে শুরু করে জেনারেল সেক্রেটারি- সমস্ত পদের ক্ষেত্রেই ধুয়েমুছে সাফ এবিভিপি সহ অন্যান্যরা। বিরাট মার্জিনে জিতেছেন ইউনাইটেড লেফটের প্রার্থীরা। নতুন সভাপতিপদে নির্বাচিত হয়েছেন এন সাই বালাজি। ৫১৮৫টি ভোটের মধ্যে তিনি পেয়েছেন ২১৫১টি ভোট। কেন্দ্রের শাসক দল বিজেপির ছাত্র সংগঠন এবিভিপির ললিত পাণ্ডে পেয়েছেন ৯৭২টি ভোট।

তিনি ছাড়াও বাকি তিনটি পদেও জয়ী হয়েছে বামপন্থীরা। জয়েন্ট সেক্রেটারিঃ বাম ছাত্র মোর্চার প্রার্থী অমুঠা জয়দীপ তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী এবিভিপি-র ভেঙ্কট চৌবে কে পরাজিত করেছেন ৭৫৭ ভোটে। জেনারেল সেক্রেটারিঃ বাম ছাত্র মোর্চার প্রার্থী ইজাজ আহমেদ রেদার তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী এবিভিপি-র গণেশ গুজার কে পরাজিত করেছেন ১১৯৩ ভোটে। বাম ছাত্র মোর্চার প্রার্থী সারিকা চৌধুরী তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী এবিভিপি-র গীতা শ্রী কে পরাজিত করেছেন ১৫৭৯ ভোটে।

নতুন সভাপতিপদে নির্বাচিত এন সাই বালাজি তাঁর প্রতিক্রিয়ায় জানিয়েছেন “জেএনইউ-র এই জয় শুধুমাত্র বিশ্ববিদ্যালয়ের চৌহদ্দির মধ্যেই আটকে থাকবে না। অথবা এই জয় শুধুমাত্র বামপন্থী দলগুলির জয় নয়, এই জয় সমগ্র ছাত্র সমাজের”
DESCRIPTION OF IMAGE

No comments

Theme images by caracterdesign. Powered by Blogger.