Header Ads

সারদায় রাজসাক্ষী হতে চান না কুণাল বাবু? কোন কুণাল কে বিশ্বাস করা যায়? #Editorial

অর্ক সানাঃ সারদা মামলা, হাজার হাজার কোটি টাকার আর্থিক দুর্নীতি, তছরুপ। সেই সারদা মামলায় এবার নতুন মোড়। আবার শিরোনামে কুনাল ঘোষ! সূত্রের খবর তৃণমূলের প্রাক্তন সাংসদ কুনাল ঘোষকে নাকি রাজসাক্ষী করতে চায় সিবিআই! এক বহুল প্রচলিত সংবাদমাধ্যম দাবি করেছে কেন্দ্রীয় সংস্থা সূত্রে খবর ফৌজদারি কার্যবিধির ১৬৪ ধারা অনুযায়ী একান্তে ম্যাজিস্ট্রেটের সামনে কুণালের জবানবন্দি নথিবদ্ধ করতে চায় তারা। কুণালকে এ বিষয়ে প্রশ্ন করা হলে তিনি নাকি কোনও মন্তব্য করতে চাননি!! 


আর এখানেই উঠছে প্রশ্ন! কুনাল ঘোষ আসলে সাদা না কালো? কিছুদিন আগে এক টিভি চ্যানেলে ইন্টারভিউ দিতে গিয়ে কুনাল দাবি করেন সারদার অর্থ আমদানির সোর্স তিনি কিছুই জানতেন না! তিনি একজন সাধারণ কর্মচারি ছিলেন সারদা মিডিয়ার। আমার জানা নেই একাধিক চ্যানেলের মালিক সারদা কোম্পানির গ্রুপ মিডিয়া সিইও পদ টি কতটা সাধারণ! সেটা কুনাল বাবু বলতে পারবেন। নজরবন্দি এডিটোরিয়াল থেকে আমার এই লেখার ভুল ব্যাখ্যা করলে ভুল করবেন, এক ক্ষুদ্র সাংবাদিক হিসাবে সাংবাদিকতার গায়ে যে কলঙ্কের ছাপ সারদা স্ক্যামের পর পড়েছে তার সত্যতা অনুধাবনের চেষ্টা করছি মাত্র। 
বহুল প্রচলিত বাঙালির ভাত-মাছের মতই জীবনের সাথে জড়িয়ে থাকা 'আনন্দবাজার পত্রিকা'র ওয়েব ভার্সানের দাবি অনুযায়ী  ১৬৪ ধারা অনুযায়ী একান্তে ম্যাজিস্ট্রেটের সামনে কুণালের জবানবন্দি নথিবদ্ধ করতে চেয়েছে সিবিআই, কিন্তু এ বিষয়ে কুনাল কোন মন্তব্য করতে চাননি! 
কিন্তু কেন? এখানেই উঠছে প্রশ্ন। কারন আগে একাধিকবার কুনাল বাবু ম্যাজিস্ট্রেটের সামনে গোপন জবানবন্দি দিতে চেয়েছিলেন, তখন তা সম্ভব হয়নি, এখন যখন সেই সুযোগ হাতের সামনে তাহলে 'অমিতবাক' কুনাল ঘোষ মন্তব্যহীন কেন? অবশ্য মন্তব্যহীন মানেই যে তিনি রাজসাক্ষী হবেন না তাঁর কোন মানে নেই!
প্রশ্ন হচ্ছে কোন কুনাল ঘোষ সত্য এবং সঠিক কথা বলছেন? এক সাধারণ রাজ্যবাসী হিসেবে জানতে চাই। বিশেষ দ্রষ্টব্য হল এখানে বিশেষ দ্রষ্টব্য বলে কিছুই নেই, এগুলো সবাই জানেন!!


কুনাল ঘোষ ১) এই কুনাল ঘোষ সারদার সাধারণ বেতনভূক্ত কর্মচারি। মালিকপক্ষ সংবাদমাধ্যম চালানোর টাকা কোত্থেকে জোগাড় করেন ইনি জানেন না। কাজেই জোগাড় কিভাবে হল জানেন না যখন খরচ কোথায় হল তা জানাও সম্ভব নয়! কারন গ্রুপ মিডিয়া সিইও আর ঝাড়ুদার সম্ভবত একই পদ! 
কুনাল ঘোষ ২) এই কুণাল ঘোষ অসম সাহসী! পুলিশের সাথে রীতিমত ধ্বস্তাধস্তি করতে করতে মিডিয়া কে বলছেন সারদা মিডিয়ায় প্রত্যক্ষ এবং পরোক্ষ ভাবে যদি সব থেকে বেশি লাভবান কেউ হয়ে থাকেন তাঁর নাম মমতা বন্দোপাধ্যায়! এই বক্তব্য কি কুণাল বাবু আবেগের বসে বলেছিলেন? তাঁর উদ্দেশ্য কি ছিল মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তথা রাজ্যের মাননীয়া মুখ্যমন্ত্রীকে কালিমালিপ্ত করা! কেন? নাকি কোন সত্যতা ছিল কুণাল ঘোষের সেই মন্তব্যে!
কি বলেছিলেন কুণাল? দেখুন ভিডিও। সৌজন্যে এবিপি আনন্দ


কুণাল ঘোষ ৩) এই কুণাল ঘোষ কলকাতা প্রেশ ক্লাবে প্রেশমিট করেন, বিষয় 'পক্ষনিন'! কার পক্ষ নিতে বলেন কুণাল ঘোষ? মমতা বন্দোপাধ্যায়ের! কেন? 
কুণাল ঘোষ ৪)  প্রাক্তন তৃণমূল সাংসদ, ২০১৮ সালে আবার তৃণমূলের ২১ শে জুলাই এর মঞ্চে!! এটার ব্যাখ্যা কি? পুনঃমুষিক ভব!!


DESCRIPTION OF IMAGE
Theme images by caracterdesign. Powered by Blogger.