সিঙ্গুরে দ্রুত জনসমর্থন হারাচ্ছে তৃণমূল। ড্যামেজ কন্ট্রোলে মমতার অস্ত্র রবীন্দ্রনাথ।

নজরবন্দি ব্যুরোঃ একদা মমতা বন্দোপাধ্যায়ের নয়নের মনি ছিল সিঙ্গুর। কার্যত সিঙ্গুর আর নন্দীগ্রামের জমি আন্দোলনের উপর ভর করেই বাংলার মসনদে ক্ষমতায় তাঁর দল তৃণমূল আর তিনি মুখ্যমন্ত্রী। কিন্তু সিঙ্গুরের খবর কি? কেমন আছে সিঙ্গুর? শোনা যায় টাটা হীন সিঙ্গুর ভাল নেই।

জমি ফেরত পাননি কৃষকরা, ভালকরে খাওয়ারটাও জোটেনা অনেক একদা অনিচ্ছুকের। তাঁর উপর রয়েছে শাসকের গোষ্ঠীদ্বন্দের বেড়াজাল। আপাত ভদ্রলোক রবীন্দ্রনাথ ভট্টাচার্য কে কার্যত কোনঠাসা করে দিয়েছিলেন জমি আন্দোলনের নেতা বেচারাম! অনিচ্ছুক কৃষকরা কিছু পান বা না পান বেচারাম কিন্তু বেশ ভালই আছেন, সম্পত্তিও বেড়েছে অনেকগুন। পাশাপাশি বেড়েছে প্রভাব প্রতিপত্তি।

আর যেটা দিন দিন বাড়ছে সেটা হল বেচারামের নেতৃত্বে সিঙ্গুরবাসীর সঙ্গে তৃণমূলে দূরত্ব। দোর্দন্ডপ্রতাপ শাসকের বিরুদ্ধে প্রকাশ্যে কিছু না বললেও সিঙ্গুর যে ক্রমশ শাসক বিরোধী হয়ে পড়ছে সে খবর পৌঁছেছে স্বয়ং দলনেত্রীর কাছে। পত্রপাঠ ড্যামেজ কন্ট্রোল! তাই দেরী না করে চটজলদি সিদ্ধান্ত সরতে হবে বেচারাম কে! ব্লকসভাপতির চেয়ার থেকে বেচারাম কে নামিয়ে সেই চেয়ারে বসানো হচ্ছে রবীন্দ্রনাথ বাবুকে! যদিও শোনা যাচ্ছে ব্লকসভাপতি হতে চাইছেন না রবীন্দ্রনাথ ভট্টাচার্য। তিনি চেয়েছেন তাঁর বদলে ব্লক সভাপতি হোক জমি আন্দোলনের অন্যতম নেতা মহাদেব দাস। 
Bengali Movie Air Hostess

DESCRIPTION OF IMAGE
Loading...
Theme images by caracterdesign. Powered by Blogger.