মাধ্যমিক পরীক্ষার তদারকিতে এবার নতুন নিয়ম আনছে পর্ষদ।

নজরবন্দি ব্যুরোঃ স্কুলের প্রধান শিক্ষক বা কোনও শিক্ষক নন। ২০১৯ সালের মাধ্যমিক পরীক্ষায় প্রতিটি কেন্দ্রের দায়িত্বে থাকবেন একজন করে সরকারি আধিকারিক। তিনি হবেন ভেনু ইনচার্জ। তাঁর তত্ত্বাবধানেই প্রতিদিন পুরো পরীক্ষাটি হবে।
কাস্টডিয়ান থেকে প্রশ্নপত্র স্কুলে আসার পর পরীক্ষা শেষ হওয়া পর্যন্ত তিনি স্কুলেই থাকবেন। যতগুলি পরীক্ষাকেন্দ্র হবে তার প্রত্যেকটিতেই থাকবেন। মাধ্যমিক পরীক্ষাকে কেন্দ্র করে অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে এমনই সিদ্ধান্ত নিতে চলেছে স্কুলশিক্ষা দপ্তর। এবার কোনও স্কুলে 'স্ট্রং রুম' থাকছে না। অর্থাত্, কাস্টডিয়ান থেকে স্কুলে প্রশ্ন আসার পর ঘরভিত্তিক প্রশ্ন বাছাইয়ের বিষয়টি এবার আর থাকছে না।

 কাস্টডিয়ানের কাছ থেকে প্রশ্নের প্যাকেট সকাল সাড়ে ১০টার মধ্যে ভেনু বা স্কুলে স্কুলে পৌঁছবে। এই প্যাকেট থেকে এক একটা ঘরে যতজন পরীক্ষা দিচ্ছে সেই সংখ্যা অনুযায়ী প্রশ্নের প্যাকেট 'সিল' করা অবস্থায় সেই ঘরে যাবে। পরীক্ষার শুরুর পাঁচ মিনিট আগে, ১১টা ৪০-এ সেই 'সিল' ভেঙে পরীক্ষার্থীদের হাতে প্রশ্ন দেওয়া হবে। প্রসঙ্গত, আগামী বছরের মাধ্যমিক শুরু হবে ১২ ফেব্রুয়ারি।

 এ বছর মাধ্যমিক দিয়েছিল প্রায় ১০ লক্ষ ৮৫ হাজার পরীক্ষার্থী। এবার সংখ্যাটা ১১ লক্ষের বেশি হতে পারে। ১১ লক্ষ ৫৭ হাজার ছাত্রছাত্রী নবমে রেজিস্ট্রেশন করেছে। সিসি, কম্পার্টমেন্টাল এবং বহিরাগত মিলিয়ে আরও ২ লক্ষ ২০ হাজার মতো ছাত্রছাত্রী রয়েছে। সব মিলিয়ে ১৩ লক্ষের বেশি পরীক্ষার্থীর মাধ্যমিকে বসার কথা।
DESCRIPTION OF IMAGE

No comments

Theme images by caracterdesign. Powered by Blogger.