সিঙ্গুরে দিদি'র মিনার, তবে দাদা'র মত নয়! শ্রাদ্ধ হবে জনগনের মাত্র ৬ কোটি টাকা! #Editorial

অর্ক সানাঃ সিঙ্গুর থেকেই উত্থান বর্তমান মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের, সিঙ্গুর আন্দোলনের পর তৃণমূলের যত উত্থান ঘটেছে সমানুপাতিকহারে পতন ঘটেছে সিঙ্গুরবাসীদের জীবনযাত্রার মান। টাটা গেছে, ন্যানো গেছে, সাথে গেছে জমি জীবিকাও। কথা রাখেননি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, ফেরাতে পারেননি জমি। এখন ভরসা ২টাকার চাল-কাকর!

সিঙ্গুরে আন্দোলন করেছিল তৃণমূল আর  জমি আন্দোলনের স্মরণে মিনার গড়বে রাজ্য সরকার! ব্যয় কত? মাত্র ৬ কোটি! টাকা যাচ্ছে সাধারণ মানুষের পকেট থেকে! কেন? রাজনৈতিক দল নিজের দলের টাকা খরচ করে নিজেদের আন্দোলনের স্মৃতিতে ৬ কোটি কেন ৬০০ কোটি ব্যায়ে মিনার বানাতেই পারে কিন্তু সরকারের কোষাগারের ৬ কোটি খরচ করে সম্পুর্ন রাজনৈতিক স্বার্থে মিনার বানানো কি জনগনের সাথে প্রতারনা নয়?
দুর্গাপুর এক্সপ্রেসওয়ের ধারে পার্কের ভিতর ১ একর জমিতে এই ৪০ ফুট উঁচু মিনার তৈরি করা হবে।  মিনারের তিনটি নকশা দেখেছেন মুখ্যমন্ত্রী। তারমধ্যে একটি নকশা চূড়ান্ত ভাবে অনুমোদন করবেন তিনি।৩০০ দিনের মধ্যে মিনার তৈরির কাজ শেষ করতে বলা হয়েছে টেন্ডারে, ডিসেম্বরের দ্বিতীয় সপ্তাহ থেকে শুরু হবে কাজ।
এবার প্রশ্ন হল, শিল্প তাড়ানোর এই মিনার সরকার গড়তে চায় কেন? আমার ব্যাক্তিগত মতামত মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নিশ্চিত ভাবেই জনকল্যানের জন্যে কিছু ভেবেছেন।

 দাদার মত ৩ হাজার কোটি ফালতু ইনভেস্ট না করে দিদি ইনভেস্ট করছেন ৬ কোটি। মিনার হবে, মিনার দেখতে টিকিট কেটে লোকজন লাইন দেবে। লাইনের নিরাপত্তার জন্যে নিরাপত্তাকর্মী নিয়োগ হবে। মিনারের পাশে পিকনিক স্পট গড়ে উঠবে। ফিংস এর মত সিঙ্গুরের মিনারের ছোট ছোট স্মারক তৈরির শিল্প গড়ে উঠবে, স্মারক বিক্রির দোকান গড়ে উঠবে। স্মারক দেখতে দেশ বিদেশ থেকে মানুষ আসবে, তাঁদের থাকা খাওয়ার জন্যে হোটের, রেস্টুরেন্ট গড়ে উঠবে। বেকার ছেলে মেয়েরা চপ মুড়ির দোকান দিতে পারবে। আর মদ দোকান তো বলাই বাহুল্য, সরকারের নিজের মদের দোকান গড়ে উঠব, তাতে কর্মী নিয়োগ হবে। চারিদিক ভরে উঠবে আনন্দে! সিপিআইএম-এ শ্মশান বানিয়ে যাওয়া সিঙ্গুর আর দীর্ঘশ্বাস ফেলবে না বরং সরকারি দেশী মদ পান করে কোন কৃষক বা তার ছেলে-মেয়ে এক চাঁদনি রাতে ওই মিনারের দিকে তাকিয়ে হয়ত বলে উঠবে "যায় যদি যাক প্রাণ..... মমতা ব্যানার্জী ভগবান!"
দিদি আপনাকে বলছি তৈরি হওয়া শিল্প কে নষ্ট করে তারই ফলক বানাতে ৬ কোটি খরচ করছেন? এতই যদি সিঙ্গুর দরদী হতেন তাহলে ওই ৬ কোটি টাকায় সিঙ্গুরের মানুষের পেট ভরতেন। এখন পেট তো ভরে শুনেছি 'মন্ত্রী' বেচারামের!
DESCRIPTION OF IMAGE

No comments

Theme images by caracterdesign. Powered by Blogger.