কেন্দ্রের বিরুদ্ধে বনধ। তবুও তা ব্যর্থ করতে মরিয়া তৃণমূল সরকার ! প্রশাসনকে নির্দেশ

নজরবন্দি ব্যুরোঃ কেন্দ্রের জনবিরোধী নীতি, কর্মসংস্থান-সহ ১২ দফা দাবিতে ৮ ও ৯ জানুয়ারি একযোগে সাধারণ ধর্মঘটের ডাক দিয়েছে ১০টি কেন্দ্রীয় ট্রেড ইউনিয়ন। বনধের আওতায় থাকছে রেল, সড়ক, বিদ্যুত্‍ পরিষেবা। ধর্মঘটের আওতায় থাকছে ব্যাংকও।
রাজ্যে বাম ট্রেড ইউনিয়ন, কো-অর্ডিনেশন কমিটি সহ অন্য শ্রমিক সংগঠনগুলি এই ধর্মঘটকে সমর্থন জানিয়েছে। কিন্তু এরাজ্যে এই বনধ ব্যর্থ করতে মরিয়া তৃণমূল কংগ্রেস সরকার। মূলত কেন্দ্রের বিজেপি সরকারের বিরুদ্ধে এই বনধ হলেও এরাজ্যে ধর্মঘট বানচাল করতে চায় শাসকদল। ক্ষমতায় আসার পর থেকেই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের অবস্থান স্পষ্ট।

 কর্মসংস্কৃতি বজায় রাখতে তিনি সব ধরনের বনধের বিরোধিতা করেছেন। এবারেও তার ব্যতিক্রম হল না। বাম শ্রমিক সংগঠনের তরফে তাঁকে বনধে শামিল হতে অনুরোধ জানানো হলেও তা প্রত্যাখ্যান করেছেন মুখ্যমন্ত্রী। বরং উলটো পথে হেঁটে কড়া হাতে বনধ সমর্থকদের দমনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে নবান্ন। প্রশাসনকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে কোনওভাবেই যেন বনধ সফল করতে না দেওয়া হয়।

নবান্নের তরফে, ডিজি, এডিজি এবং ডিভিশনাল কমিশনারদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে, সরকারি কর্মীদের নিরাপত্তা দিতে হবে। সরকারি অফিসগুলিতে যাতে কোনওরকম বনধ না হয় তাও নিশ্চিত করতে হবে। শুধু রাজ্য সরকার নয়, কেন্দ্রীয় সরকারের অফিসগুলিতেও নিরাপত্তা দিতে হবে। সরকারি সম্পত্তি যাতে নষ্ট না হয়, তাও নিশ্চিত করতে হবে। বনধের দু'দিন রাস্তায় অতিরিক্তি পুলিশ বাহিনী মোতায়েন থাকবে।
Bengali Movie Air Hostess

DESCRIPTION OF IMAGE
Loading...

No comments

Theme images by caracterdesign. Powered by Blogger.