দেশে-রাজ্যে সর্বত্র বেতন বঞ্চনা কেন? হাইকোর্টে প্রাথমিক শিক্ষকরা।

নজরবন্দি ব্যুরোঃ বেতন বৈষম্য নিয়ে সরব হয়ে আন্দোলনে নেমেছেন বহু শিক্ষক সংগঠন। কেন্দ্রের তুলনায় রাজ্যের শিক্ষকদের পাশাপাশি রাজ্যের মধ্যেও শিক্ষকদের বেতনে বিস্তর বৈষম্য নিয়ে এবার আদালতে প্রাথমিক শিক্ষক সংগঠন ওয়েস্ট বেঙ্গল প্রাইমারী টেন্ড টিচার্স অ্যাসোসিয়েশন।
গোটা দেশের প্রাথমিক শিক্ষকদের বেতন কাঠামো যেখানে ৯,৩০০ থেকে ৪২ হাজার টাকা সেখানে এরাজ্যের শিক্ষকরা পান মাত্র ৫,৪০০ থেকে ২৫,২০০ টাকা। এই বিস্তর ফারাক কেন? প্রশ্ন তুলে হাইকোর্টে মামলা করলেন ওয়েস্ট বেঙ্গল প্রাইমারী টেন্ড টিচার্স অ্যাসোসিয়েশনের সদস্য শিক্ষকরা। সংগঠনের রাজ্য সভাপতি পিন্টু পাড়ুই জানিয়েছেন, কেন্দ্রের নিয়ম অনুযায়ী সমস্ত শিক্ষাগত যোগ্যতার মাপকাঠি উত্তীর্ণ হয়েছেন প্রাথমিক শিক্ষকরা। অথচ তাদের বেতন বাড়ানো হয়নি। এই বিষয়টি বারবার রাজ্য সরকারের কাছে জানিয়েও কোনো লাভ হয়নি বলে দাবি করেছেন সংগঠনের সদস্যরা৷
এছাড়াও শিক্ষকরা জানিয়েছেন, এরাজ্যের সিনিয়র মাদ্রাসার ক্ষেত্রে শিক্ষকদের প্রথম থেকে চতুর্থ শ্রেণী পর্যন্ত ক্লাস নিতে হয়৷ তারা এইচ এস স্কেল পান। অথচ প্রাথমিক শিক্ষকরা প্রথম শ্রেণী থেকে পঞ্চম শ্রেণী পর্যন্ত ক্লাস নেওয়া সত্ত্বেও তাদের মাধ্যমিক যোগ্যতার বেতন দেওয়া হচ্ছে। রাজ্যের মধ্যেই শিক্ষকদের বেতনে এই বৈষম্য কেন? প্রশ্ন তুলেছেন প্রাথমিক শিক্ষকরা। এবিষয়ে হাইকোর্টে শুনানি রয়েছে আগামি বুধবার। মামলা চালানোর পাশাপাশি আন্দোলনের তীব্রতা আরও বাড়ানোর কথা জানিয়েছেন সংগঠনের সভাপতি। ইতিমধ্যেই নবান্ন অভিযানের প্রস্তুতি নিয়েছেন তারা। দলমত নির্বিশেষে সমস্ত শিক্ষক সংগঠনকে সমর্থন জানিয়ে এগিয়ে আসার আহ্বান জানানো হয়েছে সংগঠনের তরফে।
DESCRIPTION OF IMAGE
Loading...

No comments

Theme images by caracterdesign. Powered by Blogger.