তিনিও হয়েছিলেন রাজনীতির শিকার! জন্ম দিনে এক অজানা কিশোর।

নজরবন্দি ব্যুরো:একমাত্র গায়ক যাকে শেষ করার জন্য তাঁরই দেশের নেতা ওপলিটিকাল পার্টি উঠে পড়ে লেগেছিল। একমাত্র গায়ক যিনি সরকারের থেকে কোনোসম্মান পাননি। আয়কর দপ্তর তাঁর পেছনে পড়ে যায়। এমনকি রেডিও তে পর্য্যন্ত তাঁরগান বন্ধ করে দেওয়া হয়। তাঁকে কোন সিনেমার গান না গাইতে দেওয়ার জন্য ছবিরপরিচালক থেকে শুরু করে সঙ্গিত পরিচালক এবং মিউসিকাল কোম্পানি সবাই কে বলা হয়কিশোর কুমারকে নিলে সেই সিনেমা ও তার গান ব্যান করে দেওয়া হবে। তা কি ছিলকিশোর কুমার এর অপরাধ ? তখনকার একটি বিশেষ পলিটিকাল পার্টির নেত্রীর ছোটছেলে তাঁকে বলে বিনা পয়সায় তাদের পার্টির অনুষ্ঠানে তাঁকে গান গাইতে হবে!কিশোরকুমার বলে ছিলেন আমি বিনা পয়সায় গান গাইব না। এই ছিল তাঁর ‘অপরাধ'।
এর জন্য তাঁকে এত হেনস্থা এত অপমান সহ্য করতে হয়। আসলে কিশোর কুমারেরসবচেয়ে বড় অপরাধ কি ছিল জানেন? এই পোড়া দেশে জন্মানো। নাহলে এত বড় একটাপ্রতিভাকে এরকম লাঞ্ছনা সহ্য করতে হয়! আজ পর্যন্ত এত সরকার এসছে কিন্তুকিশোর কুমার তাঁর প্রাপ্য সন্মান পাননি, কারুর সমর্থন তিনি পাননি। ভগবান ছাড়া এটাসম্ভব হয় না। লড়াই করে দেখিয়ে দিয়েছিলেন যে হ্যাঁ, আমি কিশোর কুমার।এমন কোনগায়ক দেখিয়ে দিন যিনি তৎকালীন পিক্ ফর্মে থাকা কোন হিরোকে বলবেন যে, আমিতোমার জন্য গান গাইব না! কিশোর কুমারের সেই ক্ষমতা ছিল, তাই পিক্ ফর্মে থাকাআমিতাভ, জিতেন্দ্র, আর মিঠুন এর জন্য নিজের কণ্ঠ আর দেবেন না বলেছিলেন। বেঁচেথাকতে তাঁর স্ত্রী লিনা চান্দভারকার কে বলেছিলেন আমি যখন থাকবনা তখন দেখোলোকে কেমন খুঁজছে আমায়!
 আমার কণ্ঠের ঝলক কারুর গলায় পেলে তাঁকে নিয়ে লোকেপাগল হয়ে যাবে কিন্তু আমায় পাবে না।ঠিক তাই! কিশোর কুমার এর মৃত্যুর পর এলেন কুমার সানু, যাঁর কন্ঠে কিশোর কুমারেরএকটু ঝলক পেয়ে তাঁকে নিয়ে কত নাচানাচি।বিশ্বে এরকম কোন গায়ক কেউ দেখাক যারকণ্ঠের জন্য সুপারস্টার বা মেগাস্টার এর জন্ম হয়েছে ? হলেও কজন ? কিশোর কুমারএর কন্ঠে রাজেশ খান্না রোম্যান্টিক হিরো, অমিতাভ এর জন্য সেই ভারি আওয়াজ (যাকেহিন্দিতে বলে SHER KI AWAZ), দেবআনন্দ, জিতেন্দ্র, বিনোদ খান্না, মিঠুনচক্রবর্তী, ঋষি কাপুর, শশী কাপুর, ধর্মেন্দ্র (ধর্মেন্দ্রর লিপে কিশোর কুমারের গানঅন্য গায়কদের থেকেও বেশি হিট), সুনীল দত্ত, সঞ্জয় দত্ত, সানি দেওল সহ আরওকত স্টার এর জন্ম দিয়েছে তাঁর কন্ঠ। এই রেকর্ড আর কারুর নেই।
আজকালকারপ্রজন্মও কিশোর কুমার এর ই গান শুনছে। যত গান রিমিক্স হচ্ছে তার মধ্যে ৯০ %কিশোর কুমারের। এত কিছুর পরেও আমাদের দেশের সরকারের ঘুম ভাঙবেনা.... সত্যিকথা বলতে কিশোর কুমার-এর কোন সরকারি সম্মান লাগেনা। কারন যত দিন গান থাকবে তত দিন কিশোর কুমার এর নাম থেকে যাবে মানুষের হৃদয়ে॥শুধু গান নয় কিশোর কুমার অভিনেতাও ছিলেন, ছবির পরিচালকও ছিলেন , সঙ্গীতপরিচালকও ছিলেন , গানের কথাও লিখতেন । বলুন তো এই প্রতিভা আর কোথায় আছে? নেই আর হবেও না।
DESCRIPTION OF IMAGE
Loading...

No comments

Theme images by caracterdesign. Powered by Blogger.