Header Ads

রাজ্যপালের নিরাপত্তার দায়িত্ব আধাসেনা,কেন্দ্রের এই সিদ্ধান্ত মেনে নিতে নারাজ রাজ্য।

নজরবন্দি ব্যুরোঃ রাজ্যপালের নিরাপত্তার দায়িত্ব আধাসেনা কে দেওয়া হলো।রাজ্যের অপর ভরসা হারিয়েই কি কেন্দ্রের এই সিদ্ধান্ত? এবার রাজ্যপালের নিরাপত্তায় আধাসেনা। কিন্তু কেনো? এমন কোন কারণে রাজ্যপালের নিরাপত্তার জন্য আধাসেনা মোতায়েন করতে হলো কেন্দ্র কে? এমনি কিছু প্রশ্ন করা হচ্ছে রাজ্যের তরফ থেকে কেন্দ্রকে। রাজ্যপালের নিরাপত্তা কার দায়িত্ব এই ইস্যু নিয়ে চরমে উঠলো রাজ্য কেন্দ্র সংঘাত। রাজ্যপাল জগদীপ ধনখারের নিরাপত্তার দায়িত্ব আধাসেনা বা সিআরপিএফ এর হাতে দিতে না রাজ্য সরকার। রাজ্য সকারের বক্তব্য রাজ্যপাল রাজ্যের সাংবিধানিক প্রধান, সেই হিসাবে তার নিরাপত্তার দায়িত্ব রাজ্যের। তাহলে, কেন্দ্র কি ভাবে এমন একটা সিদ্ধান্ত নিতে পারে? কেন্দ্রের এই সিদ্ধান্ত মেনে নিতে নারাজ রাজ্য। নবান্ন সূত্রে জানা যায়, এই বিষয় নিয়ে নবান্ন তরফ থেকে কেন্দ্রে সরাষ্ট্রমন্ত্রকের কাছে চিঠি পাঠানো হয়। সেই চিঠিতে এই সিদ্ধান্তের অপর পুনর্বিবেচনা করার আর্জি জানান হয়েছে। কেন্দ্র রাজ্যের সাথে কোনো রকম আলোচনা না করে কি ভাবে এমন সিন্ধান্ত নিলো? সূত্রের খবর, রাজ্যের তরফ থেকে এই সমস্ত বিষয়ে জানার জন্য কেন্দ্রীয় সরাষ্ট্রমন্ত্রকের কাছে আবেদন করা হয়েছে।
 চিঠিতে বলা হয়েছে, রাজ্যপাল রাজ্যের সাংবিধানিক প্রধান। তিনি এই দায়িত্ব নেওয়ার প্রথম দিন থেকে তাকে জেড ক্যটাগরির নিরাপত্তা দিয়ে আসছে রাজ্য। তাকে সঠিক নিরাপত্তা দেওয়া রাজ্যের দায়িত্ব, আর সেই দায়িত্ব রাজ্য পালন করেছে। তাহলে কেনো এবং কোন কারনে কেন্দ্র এমন সিন্ধান্ত নিলো এবং রাজ্যপালের নিরাপত্তায় আধাসেনা নিয়োগ করলো। ৩০শে জুলাই ২০১৯ এ জগদীপ ধনখার রাজ্যপাল হিসাবে দায়িত্ব পান। ১৫ই অক্টোবর কেন্দ্র সরকারের তরফ থেকে এক নির্দেশিকা জারি করা হয়, এবং এই সিদ্ধান্ত জানান হয় যে রাজ্যপালের নিরাপত্তায় থাকবে ৪ থেকে ৫ জন আধাসেনা। কেন্দ্রের এই সিদ্ধান্তে রুষ্ট রাজ্য সরকার। যাদাবপুর বিশব্বিদ্যালয়ের বাবুল সুপ্রিয় য়ে ঘেরাও এর ঘটনাতে ঘেরাও হতে হয় রাজ্যপাল কেও। সেই সময় থেকেই রাজভবনের তরফ থেকে রাজ্যের কাছে রাজ্যপালের জন্য জেড প্লাস ক্যটাগরির নিরাপত্তা চাওয়া হয়।
 কিন্তু রাজ্য জেড ক্যটাগরির নিরাপত্তা রাজ্যপাল কে দেয়। ১৫ই অক্টোবরে এই নির্দেশিকা জারি হওয়ার পরে ১০ দিন পেরিয়ে গেলেও আধাসেনা এখন নিরাপত্তার দায়িত্ব নেয়নি। এর পর বেশ কয়য়েকবার রাজ্য পুলিশ এবং আধাসেনার কর্তাদের মধ্যে আলচনা হলেও কোন সিধান্তে পৌছান যায়নি যে কি ভাবে আধাসেনা মোতায়েন করা হবে।
Loading...

কোন মন্তব্য নেই

lishenjun থেকে নেওয়া থিমের ছবিগুলি. Blogger দ্বারা পরিচালিত.