Header Ads

লকডাউন মানতে হবে; না মানলে গুলি করার হুমকি দিলেন মুখ্যমন্ত্রী

নজরবন্দি ব্যুরো: বর্তমান বিশ্বে আতঙ্কের নাম করোনা ভাইরাস। এখন পর্যন্ত এই ভাইরাসের প্রভাবে সব থেকে বেশি ক্ষতি হয়েছে ইতালিতে ও চিনে। সেই আতঙ্কের ছবিও ভারতেও দেখা যাচ্ছে।
 এখন পর্যন্ত ভারতে মৃত্যু বেড়ে হল ১১। এদিন তামিলনাড়ুর মাদুরাইতে এই ভাইরাসে ১ ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে। ৫৪ বছরের এই ব্যক্তির কোনও বিদেশ ভ্রমণ করে ফেরেননি। ২৩ মার্চ থেকে তিনি হাসপাতালে ভরতি হয়ে ছিলেন। বুধবার সকাল মৃত্যু হয় তাঁর। গোটা দেশে এই মুহূর্তে সংখ্যা বেড়ে ৫২৩ । এই ভাইরাস থেকে দেশের মানুষকে বাঁচাতে ১৪ ই এপ্রিল পর্যন্ত লকডাউন ঘোষণা করেন প্রধানমন্ত্রী।
গতকাল জাতির উদ্দেশে ভাষণে নরেন্দ্র মোদী বলেন,''প্রধানমন্ত্রী থেকে সাধারণ নাগরিক তখনই বাঁচতে পারবেন, যখন আমরা ঘরের ভিতরে থাকব। ভাইরাসের সংক্রমণ আটকাতে হবে। ভাঙতে হবে সংক্রমণের শৃঙ্খল। ভারত এমন ধাপে রয়েছে, যেখানে আমাদের পদক্ষেপ ঠিক করে দেবে, কতটা ক্ষতি এড়াতে পারি আমরা। প্রতিটি পদে ধৈর্য ধরতে হবে। লকডাউনে ঘর থেকে না বেরানোর সংকল্প নিন। প্রাণ থাকলে দুনিয়া থাকবে।'' এবার তিনি ঘোষণা করেছেন আগামী ১৪ই এপ্রিল পর্যন্ত সারা দেশে লকডাউন থাকবে।

এইরকম পরিস্থিতিতে তেলেঙ্গানার মুখ্যমন্ত্রী কে চন্দ্রশেখর রাও বলেন, সাধারণ মানুষ যদি সরকারের নির্দেশ না মানেন তবে ২৪ ঘণ্টা কারফিউ জারি করবে সরকার। বুধবার সন্ধ্যা ৬ টার পর রাজ্যের সব দোকান-পাট বন্ধ করে দিতে হবে। এমনকি লকডাউন চলাকালীন মন্ত্রী, বিধায়ক, জেলা পরিষদ, ওয়ার্ড সদস্য, করপোরেটর, জেলা পরিষদ ও পুরনিগম সদস্যদের পুলিশ ও অন্যান্য আধিকারিকদের নির্দেশ দিয়েছেন এই কাজে সহযোগিতা করার জন্য।

করোনা রুখতে তৎপরতার সঙ্গে কাজ করছেন তেলেঙ্গানার মুখ্যমন্ত্রী। লকডাউন না মানা হলে লোকজন রাস্তায় দেখা মাত্রই গুলি করে দেওয়া হবে বলে কড়া হুঁশিয়ারি দিয়েছেন তিনি। কে চন্দ্রশেখর রাও আরও জানিয়েছেন, এখনও পর্যন্ত তেলেঙ্গানায় ৩৬ জনের শরীরের করোনা ধরা পড়েছে। 
Loading...

No comments

Theme images by lishenjun. Powered by Blogger.